সুদীপা, জি বাংলার রান্নাঘর, গোমাংস বির্তক

গো-মাংস বিতর্কে তছনছ সুদীপার জীবন

ঘটনার প্রতিক্রিয়া যে এমন হবে তা ঠাওর করতে পারেননি তিনি। সম্প্রতি এক লাইভে জানিয়েছিলেন নিজেই। বলেছিলেন, “আমি ক্ষমাপ্রার্থী আবেগে আঘাত দেওয়ার জন্য। আগামী দিনে মাথায় রেখে চলব। আমার না সত্যি মাথায় আসেনি এটা হতে পারে।”

দিন কয়েক আগেই গো-মাংস রন্ধন বিতর্কে তোলপাড় হয়েছিল উপস্থাপক সুদীপা চট্টোপাধ্যায়ের জীবন। বাংলাদেশের এক রান্নার শো’য়ে উপস্থাপকের পাশে দাঁড়িয়ে গো-মাংস রান্না দেখার কারণে সমাজের অধিকাংশের রোষের মুখে পড়তে হয় তাঁকে। ঘটনায় হাতজোড় করে ক্ষমা চেয়েও লাভ হয়নি। হুড়মুড়িয়ে কমেছে সুদীপার প্রোফাইলের রিচ। শুধু তাই নয়, সামাজিক মাধ্যমে পেতে হয়েছে খুন-ধর্ষণের হুমকিও। ছাড় পায়নি তাঁর মৃত মা ও কোলের সন্তান আদিদেবও। ঘটনার বেশ কয়েক দিন পার। কেমন আছেন সুদীপা? তা জানতে টিভিনাইন বাংলা যোগাযোগ করেছিল তাঁর সঙ্গে।

গলায় ক্লান্তি ভাব যেন স্পষ্ট। ঘটনার আকস্মিকতায় খানিক যেন থমকে গিয়েছেন তিনি। মৃদু হেসে বললেন, “ভাল থাকার চেষ্টা করছি। আমার ছেলেটাকে আজ এতদিন হল স্কুলে পাঠাতে পারিনি। দেখি কিছু দিন পর হয়তো পাঠাতে পারব। পুলিশ খুব সাহায্য করছে। ওরা জানিয়েছেন নিরাপত্তা দেওয়ার চেষ্টা করবে।” ঘটনার প্রতিক্রিয়া যে এমন হবে তা ঠাওর করতে পারেননি তিনি। সম্প্রতি এক লাইভে জানিয়েছিলেন নিজেই। বলেছিলেন, “আমি ক্ষমাপ্রার্থী আবেগে আঘাত দেওয়ার জন্য। আগামী দিনে মাথায় রেখে চলব। আমার না সত্যি মাথায় আসেনি এটা হতে পারে।”

পাশে দাঁড়িয়েছিলেন স্বামী অগ্নিদেবও। তাঁর সন্তানের মৃত্যু কামনায় প্রতিবাদ জানিয়েছিলেন বাবা। তবু বিতর্ক কিছুতেই পিছু ছাড়েনি তাঁর। আপাতত বিতর্ক ভুলে নতুন ভাবে বাঁচার চেষ্টায় তিনি। তবু ভয় যেন কিছুতেই পিছু ছাড়ছে না তাঁর।

সুদীপার ভিডিও:

বির্তকিত সেই রান্নার পর্বের ভিডিও লিংক- https://www.youtube.com/watch?v=_HYcMLk_KRk

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top